বর্তমান সরকারের আমলে পার্বত্য মন্ত্রণালয়ের ব্যয় হাজার কোটি টাকায় উন্নীত হয়েছে : নব বিক্রম

মোঃ ইরফান উল হক (আবির), রাঙ্গামাটিঃ

পার্বত্য সচিব নব বিক্রম কিশোর ত্রিপুরা বলেছেন, বর্তমান সরকারের সময়ে পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের ব্যয় বিশগুণ বৃদ্ধি পেয়েছে। তিনি পরিসংখ্যান তুলে ধরে বলেন, উন্নয়ন কার্যক্রম পরিচালনার জন্য আগের সরকারের সময় বছরে ৫৪ কোটি টাকা ব্যয় করা হতো সেখানে আজ হাজার কোটি টাকার ব্যয় বরাদ্দ দিয়ে উন্নয়ন কার্যক্রম পরিচালনা করা হচ্ছে পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়।
সচিব বলেন, প্রধানমন্ত্রীর আন্তরিক সহযোগীতার কারনে পার্বত্য চট্টগ্রামের যে সব দুর্গম এলাকায় এখনও বিদ্যুৎ পৌঁছায়নি সেসব এলাকায় ৪৬ কোটি টাকা ব্যয়ে সোলার প্যানেল প্রদানের প্রকল্প নেয়া হয়েছে এবং ইতোমধ্যে এই প্রকল্পের কাজ দ্রুতগতিতে এগিয়ে যাচ্ছে। সচিব বলেন, বর্তমান সরকারের আমলে যেভাবে পার্বত্য চট্টগ্রামের প্রত্যন্ত এলাকা সমূহে উন্নয়নের ছোঁয়া লেগেছে এর ধারাবাহিকতা অব্যাহত রাখতে হবে। তিনি পার্বত্য চট্টগ্রামের যেসব এলাকায় এখনো উন্নয়ন কম হয়েছে সেখানে উন্নয়নের জন্য সকলকে সম্মিলিতভাবে এগিয়ে আসার আহবান জানান।

পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের চেয়ারম্যান ও পার্বত্য মন্ত্রণালয়ের সচিব নব বিক্রম কিশোর ত্রিপুরা এনডিসি মঙ্গলবার কাউখালী উপজেলার বেতবুনিয় উপগ্রহ ভূ-কেন্দ্রে নির্মাণাধীন বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট পরিদর্শন এবং কাউখালী উপজেলা পরিষদ অডিটরিয়াম উদ্বোধন ও কাউখালী-কচুখালী সড়ক নির্মাণ কাজের উদ্বোধন শেষে নবনির্মিত অডিটরিয়ামে অনুষ্ঠিত এক সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য প্রদানকালে উপরোক্ত বক্তব্য দেন।
পার্বত্য সচিব আরো বলেন, বর্তমান সরকার পার্বত্য চট্টগ্রামের উন্নয়নে দীর্ঘ মেয়াদী বিভিন্ন প্রকল্প গ্রহণ করেছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ঘোষিত ২০২১ সালের মধ্যে বাংলাদেশকে মধ্যম আয়ের দেশে উন্নীত করার লক্ষ্যে পার্বত্য চট্টগ্রামে এসব উন্নয়ন কাজ বাস্তবায়ন করা হচ্ছে। তিনি বলেছেন পার্বত্য চট্টগ্রামের উন্নয়নে এখানে পর্যটন শিল্পের বিকাশ ঘটাতে এবং পর্যটন শিল্পের উন্নয়নের জন্য সকলকে কাজ করতে হবে।
তিনি বলেন, শুধুমাত্র পার্বত্য চট্টগ্রামে পর্যটন শিল্পের উন্নয়ন ঘটাতে পারলে অর্থনৈতিকভাবে এলাকার জনসাধারণ যেভাবে লাভবান হবে তাতে পার্বত্য এলাকার চেহারা পাল্টে যাবে।
উন্নয়ন বোর্ড চেয়ারম্যান আরো বলেন, পার্বত্য চট্টগ্রামের বসবাসরত সকল সম্প্রদায়ের অর্থনৈতিক উন্নয়নের লক্ষ্যে প্রতিটি উপজেলায় বাশ বাগান সৃজন ও মিশ্র ফলবাগানের প্রকল্প বাস্তবায়ন করা হবে।
কাউখালী উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান এস,এম চৌধুরীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত উক্ত সভায় অন্যান্যর মধ্যে বক্তব্য রাখেন পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের ভাইস চেয়ারম্যান (অতিরিক্ত সচিব) তরুন কান্তি ঘোষ, রাঙামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান চিংকিউ রোয়াজা, কাউখালী উপজেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ন-সম্পাদক মোঃ বেলাল উদ্দিন, উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা কমল বরন সাহা প্রমূখ। এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রনালয়ের যুগ্ম সচিব নাছিরুল আলম, সুদত্ত চাকমা, পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী মজিবুল আলম।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



» নবাগত অফিসার ইনচার্জের সাথে বাংলাদেশ অটো বাইক শ্রমিক কল্যাণ সোসাইটি জেলা নেতৃবৃন্দের শুভেচ্ছা বিনিময়

» রংপুরে পুলিশ-গ্রামবাসীর সংঘর্ষের ঘটনায়, ৫ পুলিশ সদস্য ক্লোজড

» ভারতীয় কুখ্যাত মাদক ব্যবসায়ী বাংলাদেশের বিজিবির হাতে আটক

» বার্সায় মেসির ১৫ বছর

» বিএনপি সরকারের রেল বন্ধের সিদ্ধান্ত ছিল দেশের জন্য আত্মঘাতী : প্রধানমন্ত্রী

» রাউজান উত্তর গুজরা জাগৃতি সংঘের বিজয়া সম্মেলন ও সঙ্গীতাঞ্জলি সম্পন্ন

» অপরাধ প্রবণতা বৃদ্ধিতে বিচার বিভাগের দ্রুত মামলা নিষ্পত্তি অপরিহার্য

» কক্সবাজার জেলা শ্রমিক লীগের বর্ধিত জরুরী সভা আহ্বান

» কক্সবাজার এলও শাখায় ৫ দালাল আটক!

» দুর্দান্ত খেলেও ভারতকে হারাতে পারল না বাংলাদেশ

সম্পাদক: অমিত চৌধুরী
নির্বাহী সম্পাদক: সেলিম হোসেন
বার্তা সম্পাদক: মোঃ শিলু পারভেজ
আন্তর্জাতিক সম্পাদক: এস এম মেহেদী

প্রধান কার্যালয়ঃ কালিয়াকৈর, গাজীপুর, বাংলাদেশ।

শাখা অফিসঃ  গোড়াই , মির্জাপুর , টাংগাইল, বাংলাদেশ ।

Mob: 01711113657,01611117887 bangladeshdainik@gmail.com

www.bangladeshdainik.com

Desing & Developed BY ZihadIT.Com
,

বর্তমান সরকারের আমলে পার্বত্য মন্ত্রণালয়ের ব্যয় হাজার কোটি টাকায় উন্নীত হয়েছে : নব বিক্রম

মোঃ ইরফান উল হক (আবির), রাঙ্গামাটিঃ

পার্বত্য সচিব নব বিক্রম কিশোর ত্রিপুরা বলেছেন, বর্তমান সরকারের সময়ে পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের ব্যয় বিশগুণ বৃদ্ধি পেয়েছে। তিনি পরিসংখ্যান তুলে ধরে বলেন, উন্নয়ন কার্যক্রম পরিচালনার জন্য আগের সরকারের সময় বছরে ৫৪ কোটি টাকা ব্যয় করা হতো সেখানে আজ হাজার কোটি টাকার ব্যয় বরাদ্দ দিয়ে উন্নয়ন কার্যক্রম পরিচালনা করা হচ্ছে পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়।
সচিব বলেন, প্রধানমন্ত্রীর আন্তরিক সহযোগীতার কারনে পার্বত্য চট্টগ্রামের যে সব দুর্গম এলাকায় এখনও বিদ্যুৎ পৌঁছায়নি সেসব এলাকায় ৪৬ কোটি টাকা ব্যয়ে সোলার প্যানেল প্রদানের প্রকল্প নেয়া হয়েছে এবং ইতোমধ্যে এই প্রকল্পের কাজ দ্রুতগতিতে এগিয়ে যাচ্ছে। সচিব বলেন, বর্তমান সরকারের আমলে যেভাবে পার্বত্য চট্টগ্রামের প্রত্যন্ত এলাকা সমূহে উন্নয়নের ছোঁয়া লেগেছে এর ধারাবাহিকতা অব্যাহত রাখতে হবে। তিনি পার্বত্য চট্টগ্রামের যেসব এলাকায় এখনো উন্নয়ন কম হয়েছে সেখানে উন্নয়নের জন্য সকলকে সম্মিলিতভাবে এগিয়ে আসার আহবান জানান।

পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের চেয়ারম্যান ও পার্বত্য মন্ত্রণালয়ের সচিব নব বিক্রম কিশোর ত্রিপুরা এনডিসি মঙ্গলবার কাউখালী উপজেলার বেতবুনিয় উপগ্রহ ভূ-কেন্দ্রে নির্মাণাধীন বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট পরিদর্শন এবং কাউখালী উপজেলা পরিষদ অডিটরিয়াম উদ্বোধন ও কাউখালী-কচুখালী সড়ক নির্মাণ কাজের উদ্বোধন শেষে নবনির্মিত অডিটরিয়ামে অনুষ্ঠিত এক সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য প্রদানকালে উপরোক্ত বক্তব্য দেন।
পার্বত্য সচিব আরো বলেন, বর্তমান সরকার পার্বত্য চট্টগ্রামের উন্নয়নে দীর্ঘ মেয়াদী বিভিন্ন প্রকল্প গ্রহণ করেছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ঘোষিত ২০২১ সালের মধ্যে বাংলাদেশকে মধ্যম আয়ের দেশে উন্নীত করার লক্ষ্যে পার্বত্য চট্টগ্রামে এসব উন্নয়ন কাজ বাস্তবায়ন করা হচ্ছে। তিনি বলেছেন পার্বত্য চট্টগ্রামের উন্নয়নে এখানে পর্যটন শিল্পের বিকাশ ঘটাতে এবং পর্যটন শিল্পের উন্নয়নের জন্য সকলকে কাজ করতে হবে।
তিনি বলেন, শুধুমাত্র পার্বত্য চট্টগ্রামে পর্যটন শিল্পের উন্নয়ন ঘটাতে পারলে অর্থনৈতিকভাবে এলাকার জনসাধারণ যেভাবে লাভবান হবে তাতে পার্বত্য এলাকার চেহারা পাল্টে যাবে।
উন্নয়ন বোর্ড চেয়ারম্যান আরো বলেন, পার্বত্য চট্টগ্রামের বসবাসরত সকল সম্প্রদায়ের অর্থনৈতিক উন্নয়নের লক্ষ্যে প্রতিটি উপজেলায় বাশ বাগান সৃজন ও মিশ্র ফলবাগানের প্রকল্প বাস্তবায়ন করা হবে।
কাউখালী উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান এস,এম চৌধুরীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত উক্ত সভায় অন্যান্যর মধ্যে বক্তব্য রাখেন পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের ভাইস চেয়ারম্যান (অতিরিক্ত সচিব) তরুন কান্তি ঘোষ, রাঙামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান চিংকিউ রোয়াজা, কাউখালী উপজেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ন-সম্পাদক মোঃ বেলাল উদ্দিন, উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা কমল বরন সাহা প্রমূখ। এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রনালয়ের যুগ্ম সচিব নাছিরুল আলম, সুদত্ত চাকমা, পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী মজিবুল আলম।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

মাদক বিরোধী ও সমাজকল্যান মূলক সংগঠন ড্রীমক্লাবের সাথে যুক্ত হন

সর্বশেষ আপডেট



সর্বাধিক পঠিত



সম্পাদক: অমিত চৌধুরী
নির্বাহী সম্পাদক: সেলিম হোসেন
বার্তা সম্পাদক: মোঃ শিলু পারভেজ
আন্তর্জাতিক সম্পাদক: এস এম মেহেদী

প্রধান কার্যালয়ঃ কালিয়াকৈর, গাজীপুর, বাংলাদেশ।

শাখা অফিসঃ  গোড়াই , মির্জাপুর , টাংগাইল, বাংলাদেশ ।

Mob: 01711113657,01611117887 bangladeshdainik@gmail.com

www.bangladeshdainik.com

Design & Developed BY ZahidITLimited